আপনার জন্য সেরা ব্রাউজার ২০১৯|The best browser for you 2019

বেস্ট প্রাইভেসি ফোকাসড ব্রাউজার!


আমাদের প্রতিদিন জীবনে এই প্রযুক্তি নির্ভর প্রয়োজনীয় টুলস গুলোর মধ্যে অন্যতম হচ্ছে ব্রাউজার। সঠিক ভাবে ইন্টারনেট ব্যবহারের জন্য প্রয়োজন হয় একটি ভাল ব্রাউজার। কারন আমরা দিনে কমপক্ষে যতক্ষণ মোবাইল ফোন অথবা কম্পিউটার ব্যবহার করি বেশিরভাগ সময়ই আমরা ব্রাউজার ইউজ করি যে কোন কাজের জন্য হতে পারে কোন কিছু ডাউনলোড করার জন্য হতে পারে অথবা কোন তথ্য জানার জন্য হতে পারে। আমরা বিভিন্ন কাজে বিভিন্ন ব্রাউজার ওপেন করি। 
তাই অবশ্যই এই প্রযুক্তিনির্ভর যুগে সবার কাছেই একটি ভালো সিকিউরিটি এবং কোয়ালিটি ফুল একটি ব্রাউজার থাকা খুবই প্রয়োজন। 
বর্তমান সময়ে পিসি এবং স্মার্ট ফোন দুটোতেই খুবই জনপ্রিয়তা লাভ করেছে এই কিছু ব্রাউজার যেমনঃ গুগল ক্রোম ব্রাউজার, মজিলা ফায়ারফক্স ব্রাউজা, অপেরা মিনি ব্রাউজা, মাইক্রোসফ্ট ব্রাউজার আরো ইত্যাদি।
অ্যান্ড্রয়েড ভালো কিছু ব্রাউজার এর লিস্ট পেতে এখানে ভিজিট করুন

এসব ব্রাউজার আমরা সবাই জেনে থাকবো এবং কখনো না কখনো একবার হলেও ব্যবহার করেছি হয়তবা। তবে আজকে আমি আপনাদের সাথে একটু অন্য ধরনের একটি ব্রাউজার নিয়ে কথা বলবো। এটি আপনারা পিসি এবং অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন পেয়ে যাবেন ব্রাউজার নাম ব্রেভ ব্রাউজার।

ব্রাউজার সম্পর্কে একটু ডিটেইল

  • ব্রাউজারটি আপনি পিসি ভার্শন ডাউনলোড করলে এটির সাইজ হবে প্রায় 58 এমবি।
  • এবং যদি আপনি এটি আপনার অ্যান্ড্রয়েড ফোনের জন্য ডাউনলোড করেন তবে এর আকারটি ডিভাইসের সাথে পরিবর্তিত হয়।

ইন্টারফেস

ব্রাউজার টির বিস্তারিত ডিটেইলসে যাওয়ার আগে আমরা একটু ব্রাউজার এর ইন্টারফেসটি দেখে নেই। 
অনেকেই ব্রাউজার ব্যবহার করার আগে এরা চিন্তা করেন যে ব্রাউজারটির ইন্টারফেস কেমন ইউজার ইন্টারফেস কেমন এবং এটি বাকি সব সেটিংস অন্যান্য ব্রাউজারের মতো সহজ নাকি? আপনি যদি এর আগে কখনো গুগল ক্রোম ব্রাউজার অথবা মজিলা ফায়ারফক্স ব্রাউজার ব্যবহার করে থাকেন। তাহলে আপনি এই ইন্টারফেসের সাথে অনেক আগে থেকেই পরিচিত কারণ এই ব্রাউজারের সব ইন্টারফেসই আপনি মজিলা ফায়ারফক্স এবং গুগল ক্রোম এর সাথে মিল পাবেন। 
ব্রাউজারের সেটিংস অপশনটি যদি আপনারা দেখেন তাহলে হয়তো বা আপনাদের খুবই পরিচিত মনে হবে কারণ এটি গুগল ক্রোম এর মতই সেটিংস অপশনটি। কিন্তু আমি যদি আমার মতে বলি সত্যি কথা বলতে এই ব্রাউজারটির টপস বার এবং সুইচিং এবং সার্চ বার অনেক বেশি স্মুথ এবং রেস্পন্সিভ। এবং ব্রাউজারটি অন্যান্য কিছু কিছু ওয়েব ব্রাউজার এর চাইতে তুলনামূলক ফাস্ট।

 অ্যাড-ব্লকার

বর্তমানে সব নতুন নতুন ওয়েব ব্রাউজার গুলোতে অ্যাড ব্লক অপশন দেওয়া থাকে কিন্তু বলে রাখা ভালো যে Brave  ওয়েব ব্রাউজারে অ্যাড ব্লক সিস্টেমটি ডেভলপমেন্ট করা হয়েছে একটু অন্যরকমভাবে। যা আমার পার্সোনালি অনেক ভালো লেগেছে কারণ এই ব্রাউজার আপনাকে অ্যাড ব্লক এর পাশাপাশি দিচ্ছে আরও অনেক সুবিধা যেমনঃ একই সাথে কাটপাটি ট্রেকার্স বন্ধ করবে কুকিজ ব্লক করবে এবং আপনার ব্রাউজিং যাতে কেউ ট্র্যাক করতে না পারে সেদিকেও এই ব্রাউজারটি অনেক গুরুত্ব রাখবে। 
এতে আপনার তথ্য আরও সেইফ হয়ে গেল এবং আপনি একটু হলেও নিঃসন্দেহে ব্রাউজিং করতে পারবেন কারণ এই ব্রাউজারটি আপনার আনওয়ান্টেড এবং ম্যালিশিয়াস স্ক্রিপ্ট ব্লক করবে। যাতে আপনি হ্যাকার এর শিকার না হন।

ফিচারস

এতক্ষণ আমরা ব্রাউজারটি সম্পর্কে একটু হলেও ধারণা পেয়েছি তো এখন আসি আসল কথায় ব্রাউজারটি একটি chromium-browser অনেক ফিচারস পাবেন। এর মধ্যে অন্যতম ফিচারস হচ্ছে এটিতে আপনি খুব দ্রুত জিমেইলে লগইন করতে পারবেন এবং আরো বিভিন্ন ফিচারস পেয়ে যাবেন যেগুলা গুগল ক্রোমে আপনি পেয়ে থাকেন।

Brave রিওয়ার্ডস

যেহেতু Brave ব্রাউজার নিয়ে কথা বলছি তাই রিওয়ার্ড অপশনটির কথা না বললেও হয় না। বর্তমান সময়ে যে কোন ওয়েব সাইটের এডমিন বলুন তাদের ইনকাম এর মূল উৎস হচ্ছে বিভিন্ন অ্যাড দেখিয়ে এবং এই ব্রাউজারটি যেহেতু সম্পূর্ণ এ অ্যাড ব্লক সিস্টেম করা তাই তারা একটি ফিচারস আপনাদের জন্য এনাবল করে রেখেছে যা ব্যবহার করে আপনারা ওয়েবসাইট লেখকদের সাপোর্ট করতে পারেন। হ্যাঁ আপনারা চাইলে এড ব্লক সিস্টেমটি অফ করতে পারেন। 
আরো ভালোভাবে বুঝতে। আপনি যদি এই Brave রিওয়ার্ড অপশনে জয়েন করেন। তাহলে আপনি অ্যাডব্লকার একটিভ থাকা অবস্থায় বিভিন্ন ওয়েব সাইটে ভিজিট করবেন তখন এই Brave ব্রাউজার আপনাদেরকে নির্দিষ্ট কিছু এডস টার্গেট এর মাঝেমধ্যে দেখাতে পারে।
এসব এডস দেখার পর আপনার যে রিওয়ার্ড অ্যাকাউন্টটি থাকবে সেখানে এক ধরনের পয়েন্ট অ্যাড হবে যেটির নাম BAT এখন আপনারা চাইলে এই সব পয়েন্ট যে কোন ওয়েব সাইটের এডমিন কে অথবা অথর কে ডোনেট করতে পারবেন।
এটি নিয়ে বিস্তারিত ব্রাউজারে লিখা আছে.....
তাও আপনাদেরকে এটি সম্পর্কে একটু ধারনা দেওয়ার চেষ্টা করি? অনেকেই বলতে পারেন যে এই BAT পয়েন্টের কোন রিয়েল ভ্যালু আছে কিনা। হ্যাঁ এই পয়েন্টে রিয়েল ভ্যালু আছে এবং এই পয়েন্টের 30 BAT মূল্য প্রায় ৪ ইউএস ডলার এর সমান।
তবে বাংলাদেশে এই Brave রিওয়ার্ড অপশনের কোন মূল্য নেই কারণ। কারণ বাংলাদেশে Brave অ্যাড এর কোন পার্টনার নেই।

পারফরম্যান্স


পারফরমেন্সের কথা বলতে গেলে আমি আপনাদেরকে সহজ ভাষায় বলতে চাই যে এটি একটি chromium-browser তাই এটির স্প্রিড আপনার গুগল ক্রোম অথবা মজিলা ফায়ারফক্স ইত্যাদি ব্রাউজারের মতোই পাবেন হয়তোবা একটু কম বেশি হতে পারে। আমি আশাবাদী এটির যে ফিডব্যাক টি আসবে আপনার কাছ থেকে তা অবশ্যই পজেটিভ হবে।

আমার ফিডব্যাক এই ব্রাউজার সম্পর্কে

আমার ফিডব্যাক এই ব্রাউজারটি সম্পর্কে 100 মধ্যে 95 শতাংশ আপনার এই ব্রাউজারটি পছন্দ হবে যদি ব্যবহার করে না থাকেন তাই অবশ্যই একবার ব্যবহার করে দেখুন।

এবং এটি কোন স্পন্সরশিপ আর্টিকেল না এটি শুধুমাত্র আমার প্রিয় একটি ব্রাউজার নিয়ে একটু লিখলাম এবং এটি ছিল খুবই ছোট উপর একটি রিভিউ Brave ব্রাউজারটি নিয়ে।
এবং কিছুদিন ধরে নিয়মিত আর্টিকেল দিতে পারছি না আমার এক্সামের একটু চাপ যাচ্ছে আগামী মাস থেকে নিয়মিত আর্টিকেল পাবলিশ করা হবে ধন্যবাদ।

আর হ্যাঁ আপনারা কেমন আছেন সবাই তা কমেন্ট করে অবশ্যই জানাবেন এবং আপনার প্রিয় ব্রাউজার টির নাম ও আমাদেরকে জানাতে পারেন ধন্যবাদ।

0 Comments: